ডিটিআই-এর নবীনবরণ অনুষ্ঠিত

ডিটিআই-এর নবীনবরণ অনুষ্ঠিত

  • ক্যাম্পাস ডেস্ক

ড্যাফোডিল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটে (ডিটিআই) ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের নবীনবরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত ২৮ সেপ্টেম্বর ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ৭১ মিলনায়তনে এ নবীনরণ অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ করিগরি শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মো. মোস্তাফিজুর রহমান এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ড্যাফোডিল পরিবারের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নূরুজ্জামান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ড্যাফোডিল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটের নির্বাহী পরিচালক ও অধ্যক্ষ রথীন্দ্র নাথ দাস। স্বাগত বক্তব্য রাখেন ড্যাফোডিল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিটের উপ পরিচালক মো. মোয়াজ্জেম হোসেন, ধন্যবাদ বক্তব্য রাখেন ড্যাফোডিল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটের একাডেমিক উপদেষ্টা ড. আবদুস সালাম চৌধুরী। অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দ নবীন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য রাখেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, প্রযুক্তি জগতের দ্রুত পরিবর্তনের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে পারলেই শিক্ষা স্বার্থক হবে, তাই শিক্ষার্থীদের এমনভাবে গড়ে তুলতে হবে যাতে তথ্যপ্রযুক্তির দ্রুত পরিবর্তনশীল বিশ্বের পরিবর্তনের সাথে নিজেকে খাপ খাইয়ে নিতে পারে। ড্যাফোডিল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট আন্তর্জাতিক মান বজায় রেখে যুগোপযোগী বাস্তবভিত্তিক কর্মমুখী শিক্ষা প্রদান করছে বলেই এর শতভাগ শিক্ষার্থী কর্মক্ষেত্রে সফল হচ্ছে। তিনি শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পাশাপশি নৈতিক মূল্যবোধ ও মানবিক গুনাবলী অর্জনের মাধ্যমে নিজ জীবনকে সমৃদ্ধ করার এবং একইসঙ্গে দেশকে সমৃদ্ধ করার পরামর্শ দেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মোহাম্মদ নূরুজ্জামান নবীনদের উদ্দেশে ড্যাফোডিল ফ্যামিলির বিভিন্ন উদ্যোগের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের ক্যারিয়ার গঠনের পরামর্শ দেন। ডিটিআই থেকে অর্জিত তথ্য-প্রযুক্তি ভিত্তিক শিক্ষা ডিজিটাল বাংলাদেশ নির্মাণে অবদান রাখবে বলে তিনি আশা ব্যক্ত করেন। তিনি শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পাশাপাশি নৈতিক শিক্ষার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি বলেন, আমাদের তরুণরা অত্যন্ত সম্ভাবনাময় এবং আমাদের দায়িত্ব হচ্ছে তাদের উপযুক্ত করে গড়ে তোলা। তিনি বলেন, প্রতিযোগিতামূলক বিশ্ববাজরে টিকে থাকতে হলে শিক্ষার পাশাপাশি প্রযুক্তি শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। তিনি নবীন শিক্ষার্থীদের প্রতিনিয়ত পরিবর্তনশীল প্রযুক্তির সাথে  নিজেদের মানিয়ে চলার  আহ্বান জানান।

সভাপতির বক্তব্যে ডিটিআই অধ্যক্ষ রথীন্দ্র নাথ দাস ডিটিআই কর্মপরিধি এবং এর উল্লেখযোগ্য সাফল্যের ইতিহাস তুলে ধরে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার পাশাপাশি প্রযুক্তিগত দক্ষতা ও আন্তর্জাতিক মানের শিক্ষা অর্জনের ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

Leave a Reply