‘কৃষি সাংবাদিকতা : হৃদয়ে মাটি ও মানুষের ওপর গবেষণা’

‘কৃষি সাংবাদিকতা : হৃদয়ে মাটি ও মানুষের ওপর গবেষণা’

  • ক্যাম্পাস ডেস্ক

ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিভাগের আয়োজনে ‘কৃষি সাংবাদিকতা : হৃদয়ে মাটি ও মানুষের ওপর গবেষণা’ শীর্ষক এক সেমিনার আজ রোববার (২ ডিসেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের ৭১ মিলনায়তনে  অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ও চ্যানেল আইয়ের বার্তা প্রধান এবং ‘হৃদয়ে মাটি ও মানুষ’ অনুষ্ঠানের জনপ্রিয় উপস্থাপক শাইখ  সিরাজ এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ড্যাফোডিল ফ্যামিলির প্রধান নির্বাহী মোহাম্মদ নূরুজ্জামান। ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. এসএম মাহবুব উল হক মজুমদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সেমিনারে অন্যান্যের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন মানবিক ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক এ এম এম হামিদুর রহমান, সহযোগী ডিন অধ্যাপক ড. ফারহানা হেলাল মেহতাব, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের ভারপ্রাপ্ত প্রধান ড. শেখ মো. শফিউল ইসলাম, একই বিভাগের শিক্ষক ড. তৌফিক এলাহী, সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবী রিয়াজ মোর্শেদ, চ্যানেল আইয়ের মাল্টিমিডিয়া এডিটর তৌফিক আহমেদ, প্রমুখ।

শাইখ সিরাজের গ্রন্থনা, পরিকল্পনা ও উপস্থাপনায় প্রচারিত ‘হৃদয়ে মাটি ও মানুষ’ অনুষ্ঠান ও শাইখ সিরাজের ওপর গবেষণাকর্ম সম্পন্ন করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করায় ড. শেখ মো. শফিউল ইসলামকে এ সেমিনারের মাধ্যমে অভিনন্দিত করা হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শাইখ সিরাজ বলেন, আটত্রিশ বছর ধরে কৃষি বিষয়ক এ অনুষ্ঠান করছি। কখনো ভাবিনি এই অনুষ্ঠান নিয়ে গবেষণা হবে। কিন্তু যখন জানলাম, শফিউল এই দূরহ কাজটি করে ফেলেছে এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় তাকে পিএইচডি ডিগ্রি প্রদান করেছে তখন সত্যিই গর্বে বুকটা ভরে গেছে।

শাইখ সিরাজ বলেন, কোনো টেলিভিশন অনুষ্ঠান ও তার উপস্থাপককে নিয়ে গবেষণা সম্ভবত পৃথিবীতে এই প্রথম। এজন্য শেখ শফিউল ইসলাম, তাঁর পিএইচডি তত্ত্বাবধায়ক অধ্যাপক ড. গোলাম রহমান ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যায়কে ধন্যবাদ জানান শাইখ সিরাজ। তিনি বলেন, শফিউল ইসলাম যে পথ দেখালেন সেই পথ ধরে তরুণ শিক্ষার্থীরা নিশ্চয় বহু বিচিত্র বিষয় নিয়ে গবেষণা করবেন। এসময় তিনি শিক্ষার্থীদেরকে সততা, নিষ্ঠা ও একাগ্রতা নিয়ে কাজ করার পরামর্শ দেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ড্যাফোডিল ফ্যামিলির প্রধান নির্বাহী মোহাম্মদ নূরুজ্জামান বলেন, সত্যিকার অর্থে বাংলাদেশে যে কয়জন চেঞ্জ মেকার রয়েছেন তাদের মধ্যে শাইখ সিরাজ একজন। তিনি একাই বাংলাদেশের কৃষি অর্থনীতিকে বদলে দিয়েছেন। তাকে নিয়ে গবেষণা করার জন্য ড. শেখ শফিউল ইসলামকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান তিনি।

Leave a Reply