শিক্ষক হতে চান রিমু

শিক্ষক হতে চান রিমু

  • ক্যাম্পাস ডেস্ক

নরসিংদীর মেয়ে হাবিবা সুলতানা রিমু। স্বপ্ন ছিল প্রকৌশল বিষয়ে পড়াশুনা করে প্রকৌশলী হবার। কিন্তু কাংঙ্ক্ষিত বিষয় না পেয়ে অনার্সে ভর্তি হন অর্থনীতি বিষয়ে। অর্থনীতি বিষয় নিয়ে পড়তে প্রথম দিকে মন খারাপ হলেও কিন্তু এখন এটাই তার চিন্তার জগত। স্নাতকে ভালো ফলাফল করে পেয়েছেন সম্মাননাও। এখানেই থেমে থাকতে চান না রিমু, এগিয়ে যেতে চান বহু দূর। ফলাফলের এই ধারাবাহিকতা স্নাতকোত্তরেও অব্যাহত রাখতে চান এই মেধাবী ছাত্রী। পড়াশুনার পাশাপাশি সামাজিক সংগঠনের সাথেও যুক্ত রয়েছেন তিনি। জীবনের লক্ষ্য পূরণে আত্মপ্রত্যয়ী রিমু একজন ভালো মানুষও হতে চান। কাজ করতে চান দেশ ও মানুষের জন্য। ভবিষ্যতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক হয়ে সমাজে শিক্ষার আলো ছড়ানো তার স্বপ্ন।

এইচএসসির পরে উচ্চ শিক্ষার জন্য ২০১২-১৩ শিক্ষাবর্ষে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগে ভর্তি হন হাবিবা। চার বছর কঠোর অধ্যবসায় আর পরিশ্রমের ফলও পান এই মেধাবী ছাত্রী। ২০১৭ সালে অনার্স চূড়ান্ত পরীক্ষার ফলাফলে বিভাগে প্রথম স্থান অর্জন করেন হাবিবা। তার প্রাপ্ত সিজিপিএ ৩.৮৭। যা শুধু অর্থনীতি বিভাগ নয়, সামাজিক বিজ্ঞান ও মানবিক অনুষদের মধ্যে সর্বোচ্চ ফলাফল। মেধাবী ছাত্রী হাবিবা সুলতানা বলেন, ইচ্ছে ছিল ইঞ্জিনিয়ারিং পড়া। এইচএসসির ফল প্রকাশের পর মনটা একেবারেই ভেঙ্গে গিয়েছিল। প্রথমে মন খারাপ ছিল কিন্তু এখন এটাই আমার জগত। আমার বাবার ইচ্ছাই আমাকে এতদূর নিয়ে এসেছে। আমার আইডল হচ্ছেন আমার বাবা। জীবনের লক্ষ্য হলো একজন ভালো মানুষ হতে চাই। এই জ্ঞানকে কাজে লাগিয়ে দেশের সামগ্রিক উন্নয়নে অবদান রাখতে পারলেই জীবনটা সার্থক হবে।

সূত্র: ইত্তেফাক

Leave a Reply