জয় করুন ইংরেজির ভয়

জয় করুন ইংরেজির ভয়

  • শাহ মো. সজীব

ক) বিসিএস প্রিলিমিনারিতে ব্যাকরণে ২০ নম্বর এবং সাহিত্যে ১৫ নম্বরসহ মোট ৩৫ নম্বর বরাদ্দ থাকে। একটা সিলেবাসও দেওয়া আছে। তবে এর সঙ্গে কিছু জিনিস যোগ করে পড়লে আর ঝুঁকির কিছু থাকবে না।
খ) সাধারণত তিনটি ধরন বা দৃষ্টিকোণ থেকে প্রশ্ন করা হয়ে থাকে। যথা অ) ব্যাকরণভিত্তিক প্রশ্ন, আ) শব্দার্থভিত্তিক প্রশ্ন ও ই) সাহিত্যভিত্তিক প্রশ্ন।
গ) ব্যাকরণের ব্যতিক্রম নিয়মগুলো সবচেয়ে বেশি মনোযোগ দিয়ে পড়বেন। যেমন আমরা জানি Preposition ‘To’ এর পর সব সময় Verb এর Present Form বসে। কিন্তু এরও কিছু ব্যতিক্রম আছে মানে এরপর Verb–এর সঙ্গে ing বসে। যেগুলোতে ing বসে তা বেশি গুরুত্বপূর্ণ। এভাবে সব Chapter এ বাছাই করবেন।
ঘ) Parts of Speeches এর মধ্যে ৬টি খুব গুরুত্বপূর্ণ। যথা Noun, Pronoun, Adjective, Verb, Adverb, Preposition। এগুলো শুরুতেই পড়ে নেবেন। কারও বুঝতে অসুবিধা হলে বিস্তারিত সময় নিয়ে পড়বেন।
ঙ) প্রিলিমিনারির ইংরেজি সিলেবাসের সঙ্গে কিছু টপিকস যোগ করে নেবেন। যেমন Dangling Modifier, Inversion, Affirmative and Negative Agreement, Nominal That Clause, Animals’ Sound etc.
চ) বাজারের যেকোনো একটা গাইড সংগ্রহ করে নিলেই হবে। তবে যাঁরা ইংরেজিতে বেশি দুর্বল তাঁরা নবম-দশম শ্রেণির চৌধুরী অ্যান্ড হোসাইনের লেখা অ্যাডভান্স গাইডটি পড়তে পারেন। মনে মনে ভাববেন, ছোট হয়ে শিখছেন।
ছ) Transformation অংশে শুধু Affirmative to Negative, Affirmative to Interrogative and vise versa পড়লেই হবে। বাকিগুলো বাদ।
জ) নিয়মগুলো ভালো করে পড়বেন। বেশি করে উদাহরণ পড়বেন। অনেক সময় উদাহরণ দিয়ে নিয়মটা সহজে মনে রাখা যায়। কিছুদিন পরপর পঠিত নিয়মগুলো রিভিশন করার চেষ্টা করবেন। মনে রাখবেন, আপনি যত নিয়ম জানবেন, তত ইংরেজিতে ভালো হবেন।
ঝ) সিলেবাসের শেষে Names of parts of paragraphs/letters/applications নামে একটা অংশ আছে। এটা নিয়ে মাথা ঘামানোর দরকার নেই। তেমন প্রশ্ন আসে না।
ঞ) Gender অংশে সব সময় Feminine হয়, সব সময় Masculine হয় এবং Common Gender বাচক শব্দগুলো ভালো করে পড়বেন।
ট) Number পড়ার সময় দেখবেন, কিছু পরিবর্তন আছে নিয়ম ছাড়াই চেঞ্জ হয়ে যাচ্ছে বা নিয়মে ফেলা কঠিন। সেগুলো ভালো করে পড়বেন।
ঠ) Verb অংশে Participle বিশেষ করে Present Participle, Gerund, Linking Verb, Causative Verb ভালো করে পড়বেন। Group Verb বিগত প্রশ্নের আলোকে বাছাই করে পড়বেন।
ড) Clauses অংশে Noun Clause, Adjective Clause ও Adverbial Clause চিনতে পারলেই হবে। এর কোনো Classification পড়তে হবে না।
ঢ) Correction থেকে প্রতিবছরই প্রশ্ন আসে। এর পরিধি অনেক। কারণ, Correction বলতে কোনো নির্দিষ্ট Chapter কে বোঝানো হয় না। ব্যাকরণের সব মিলে Correction হয়। অন্য নিয়ম পারলে এটাও পারবেন।
ণ) শব্দের অর্থ পড়ার জন্য ১০টি পরামর্শ মনে রাখুন। যথা:

(অ) যে ব্যক্তি ডিকশনারি মুখস্থ করে বা চেষ্টা করে সে হয় পশু, না হয় দেবতা। উক্তিটি কার এ মুহূর্তে মনে পড়ছে না। তার মানে ডিকশনারি মুখস্থ করবেন না। (আ) কোন শব্দগুলো গুরুত্বপূর্ণ, তা আপনি খুঁজে বের করতে গেলে বেশ সময় লাগবে। তাই বাজার থেকে একটা গাইড কিনে নিলেই ভালো। এ ক্ষেত্রে সাইফুরস ভোকাবিউলারি নিতে পারেন। (ই) কমানোর চিন্তা করবেন না; যত পারবেন তত পড়ুন। (ঈ) ফ্লাস কার্ড বানিয়ে নেবেন। বাইরে বের হওয়ার সময় সঙ্গে নিয়ে যাবেন। সময় পেলে দেখবেন। যেমন দেখেন ফেসবুক। (উ) প্রতিদিন কিছু শব্দের অর্থ পড়ুন। পনেরো থেকে বিশটি বা ততোধিক হতে পারে। এটা আপনার সামর্থ্যের ওপর নির্ভর করবে। (ঊ) পড়ার সময় সম্ভব হলে লিখবেন। লিখলে বেশি মনে থাকে। (ঋ) ইংরেজি পত্রিকা পড়ার সময় শব্দের অর্থের দিকে খেয়াল রাখুন। নোট রাখুন। সপ্তাহে এক দিন পড়লেও চলবে। (এ) পড়ার সময় নতুন কোনো শব্দ এলে শিখে ফেলুন। (ঐ) বিগত বছরে আসা শব্দার্থবিষয়ক প্রশ্নগুলো ভালো করে আয়ত্ত করে নেবেন। কারণ, অনেক সময়ই প্রশ্ন রিপিট হয়ে থাকে। বিসিএস, ব্যাংক জব, ভর্তি পরীক্ষা, আইবিএর প্রশ্নগুলো ভালো করে পড়ুন। (ও) যদি সম্ভব হয় কিছু শব্দের সমার্থক ও বিপরীত শব্দ পড়বেন।

ত) ইংরেজি সাহিত্যের জন্য একটু পড়তে তো হবেই। কারণ, এটা আগে অনেকেই পড়েননি! প্রথমে সাহিত্যের যুগ বিভাগটা ভালো করে পড়ে নেবেন। কোন যুগ কত সাল থেকে কত।
থ) সাহিত্যের কিছু Literary Term থাকে। যেমন Metaphor কী, Simile কী, Hyperbole কী ইত্যাদি। এগুলো একটু পড়তে হবে। তবে এর সংখ্যা বেশি না। ৩০-৩৫টি হবে।
দ) উপাধিসমূহ দেখতে হবে বিশেষ করে যারা বাংলাদেশে বেশ পরিচিত। যেমন Poet Of Sensuousness বলা হয় কাকে। এর সংখ্যাও কম। ২০টির বেশি হবে না।
ধ) অনেক কবি–সাহিত্যিক প্রবাদের মতো বেশ ভালো ভালো উক্তি করেছেন। তা বাছাই করে পড়তে হবে। এর পরিধি একটু বেশি।
ন) ইংরেজি সাহিত্য পড়ার জন্য আপনি যেকোনো একটা গাইড পড়লেই হবে। এখন বাংলা ভাষায়ও কিছু গাইড পাওয়া যায়।
প) গুরুত্বপূর্ণ কিছু সাহিত্যিক হলেন
* C. Chaucer * C. Marlowe
* William Shakespeare * William Wordsworth * John Milton * John Keats * S. T. Coleridge
* W. S. Maugham * Charles Dickens * Robert Browning
* Ernest Hemingway * Jonathan Swift * P. B. Shelly * Edmund Spencer * O’ Henry * Bertrand Russell * Jane Austen * H. G. Wells * G. B. Shaw * Alfred Tennyson * William Blake
* W. B. Yeats * T. S. Eliot
* E. M. Foster * Sir Walter Scott তাঁদের শেষ করে সময় থাকলে বাকিদের পড়বেন।
ফ) যদি কোনো বড় অংশ আয়ত্ত করতে না পারেন বাদ দিন। যেমন ভয়েস কিংবা ন্যারেশন অথবা কোনো কঠিন শব্দার্থ। তবে সব আবার বাদ দিতে যাবেন না। মাঝে মাঝে একটু ঝুঁকি তো নিতেই হয়।

লেখক: প্রশাসন ক্যাডার (২য় স্থান), ৩৪তম বিসিএস

সূত্র: প্রথম আলোfavicon59-4

Leave a Reply