হাজার প্রতিযোগীকে হারিয়ে ‘ব্রাইট্যাপ’ প্রথম

হাজার প্রতিযোগীকে হারিয়ে ‘ব্রাইট্যাপ’ প্রথম

  • উদ্যোক্তা ডেস্ক

বিশ্বের ১০১টি দেশের এক হাজার স্টার্টআপ। তাঁরা মিলিত হয়েছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানেসবার্গে। ‍উদ্দেশ্য ‘স্টার্টআপ ওপেন-২০১৬’ শীর্ষক প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়া। এত প্রতিযোগীর মধ্য থেকে কে হবে প্রথম ? উত্তর জানতে অপেক্ষা করতে হলো ৫ জানুয়ারি ২০১৭ পর্যন্ত। অবশেষে সবাইকে তাক লাগিয়ে প্রথম স্থান অধিকার করল ইসরাইল থেকে অংশ নেওয়া স্টার্টআপ ‘ব্রাইট্যাপ’। বিজয়ী দলের তিন সদস্য হচ্ছেন কন্সটানটিন বেরেজিন, অ্যারিয়েল ড্রাচ এবং অ্যালেক্স সুদাক।

প্রতিযোগিতাটির আয়োজক গ্লোবাল এন্ট্রাপ্রেনারশিপ নেটওয়ার্ক (জেন)। প্রতিষ্ঠানটির প্রেসিডেন্ট জনাথন ওর্টম্যানস বলেন, ‘চিরায়ত শিল্প প্রতিষ্ঠানের দিন শেষ। এখন শিল্পের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে আধুনিক এবং নিত্য নতুন প্রযুক্তি। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের তরুণ উদ্যোক্তারা এবং উদ্ভাবকরা এই পরিবর্তনে নেতৃত্ব দিচ্ছেন। তাঁরা জটিল জটিল সমস্যার সমাধান বের করছেন। ফলে অর্থনীতিতে যুক্ত হচ্ছে নতুন অধ্যায়। ব্রাইট্যাপ হচ্ছে এই নবতর উদ্ভাবনের চমৎকার উদাহরণ।’

unnamed‘ব্রাইট্যাপকী

ব্রাইট্যাপ এক ধরনের পানি পরিমাপক সেন্সর। এটি এমন এক ধরনের সেন্সর মিটার যার মাধ্যমে পানির বিশুদ্ধতা পরিমাপ করা যায়। মিটারটি প্রস্তুত করেছে ‘বি অয়্যার আইটি’ নামের একটি ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান। বি অয়্যার আইটির প্রধান নির্বাহী কন্সটানটিন বেরেজিন বলেন, ‘ব্রাইট্যাপ মিটার যেকোনো পানির ট্যাপ এবং পাইপে সংযুক্ত করা যায়। মিটারটির মাধ্যমে ব্যবহারকারীরা খুব সহজে এবং কম খরচে পানি বিশুদ্ধ করতে পারবেন। ‍শুধু তাই নয়, কত সময় নিয়ে কী পরিমাণ পানি বিশুদ্ধ হচ্ছে তার সকল তথ্য দৃশ্যমান হবে এই মিটারে।’

টপ টেন স্টার্টআপ

প্রথম স্থান অধিকারী ব্রাইট্যাপ ছাড়া প্রতিযোগীতায় দ্বিতীয় থেকে নবম স্থান অধিকার করেছে যথাক্রমে ভারতীয় স্টার্টআপ বোল্ট স্পোর্টস টেকনোলজিস,  কলাম্বিয়ান স্টার্টআপ কুকিজ অ্যান্ড কুকিজ,  মাল্টা থেকে অংশ নেওয়া স্টার্টআপ ফ্রেসি,  ইসরাইলি স্টার্টআপ কার্জ,  কেনিয়ান স্টার্টআপ ম্যারিনি ন্যাচারালস,  যুক্তরাষ্ট্রের স্টার্টআপ মিটহেয়ার,  যুক্তরাজ্যের স্টার্টআপ ওয়ান টেস্ট ডায়াগনস্টিক,  ভারতের স্টার্টআপ ওপেন ওয়াটার  এবং মিশরীয় স্টার্টআপ কিউআই

কী পাবে টপ টেন

untitled2
ব্রাইট্যাপের তিন সদস্য। ছবি: বিঅয়্যারআইটি ডটকম।

আসছে ১৩ থেকে ১৬ মার্চ দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানেসবার্গে অনুষ্ঠিতব্য ‘গ্লোবাল এন্ট্রাপ্রেনারশিপ কংগ্রেস’ প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার সুযোগ পাবে প্রথম স্থান বিজয়ী ব্রাইট্যাপ। পুরষ্কারের অংশ হিসেবে বিজয়ী দল আরও পাবে জোহানেসবার্গ ভ্রমণের এয়ারটিকিট এবং সিএনবিসি আয়োজিত বিশ্বের শীর্ষ দশটি স্টার্টআপের সঙ্গে ফেলোশিপের সুযোগ। এছাড়া নভেম্বরে অনুষ্ঠিতব্য ‘গ্লোবাল এন্ট্রাপ্রেনারশিপ উইক’-এ অংশ নেওয়ার সুযোগ পাবে এই শীর্ষ দশ স্টার্টআপ। এর পাশাপাশি টপ টেন স্টার্টআপ পাবে জেন স্টার্টআপ ক্লাবের সদস্য হওয়ার সুযোগ। এই ক্লাবের সদস্য হওয়ার ফলে বিশ্বের ১৬৫টি দেশের স্টার্টআপ কমিউনিটির সঙ্গে যুক্ত হতে পারবে ক্লাবের সদস্যরা। নেটওয়ার্ক বিস্তারের ক্ষেত্রে নিঃসন্দেহে এটি একটি বড় সুযোগ।

সূত্র: গ্লোবাল এন্ট্রাপ্রেনারশিপ নেটওয়ার্কের নিজস্ব ওয়েবসাইট।favicon59-4

Leave a Reply