রিভিউয়ে ৪ পাকিস্তানিসহ সাতজনের সাফাই সাক্ষ্যের আবেদন

রিভিউয়ে ৪ পাকিস্তানিসহ সাতজনের সাফাই সাক্ষ্যের আবেদন

নিউজ ডেস্ক: বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাউদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরীর ফাঁসির রায় পুনর্বিবেচনার আবেদনের শুনানিতে চার পাকিস্তানিসহ সাতজনের সাফাই সাক্ষ্য নেওয়ার আবেদন করা হয়েছে। সোমবার সুপ্রিম কোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় সাকা চৌধুরীর আইনজীবী এ সংক্রান্ত আবেদন জমা দেন। সংবাদ: প্রথম আলো।

আজ বেলা দুইটার দিকে সাকা চৌধুরীর আইনজীবী মো. হুজ্জাতুল ইসলাম খান সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানাবেন বলেছেন। একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সাকা চৌধুরী ১৪ অক্টোবর সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করেন। একই দিন রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করেন মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা আলী আহসান মোহাম্মাদ মুজাহিদ।

প্রথম আলোর প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, সাকা ও মুজাহিদের করা রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন শুনানির দিন ঠিক করতে ১৫ অক্টোবর আবেদন করে রাষ্ট্রপক্ষ। আবেদন দুটি ২০ অক্টোবর চেম্বার বিচারপতির আদালতে উপস্থাপন করা হবে বলে জানিয়েছেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

গত ৩০ সেপ্টেম্বর সাকা চৌধুরী ও মুজাহিদের বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলার চূড়ান্ত রায় প্রকাশ করেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। পরদিন তাঁদের বিরুদ্ধে মৃত্যু পরোয়ানা জারি করেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১। ওই দিনই কারা কর্তৃপক্ষ ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে মুজাহিদ এবং গাজীপুরের কাশিমপুরে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার-১-এ সাকা চৌধুরীকে মৃত্যু পরোয়ানা পড়ে শোনায়।

মুক্তিযুদ্ধকালে চট্টগ্রামের বিভিন্ন এলাকায় গণহত্যা ও মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ২০১৩ সালের ১ অক্টোবর সাকা চৌধুরীকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেন ট্রাইব্যুনাল-১।

১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধকালে বুদ্ধিজীবী হত্যার দায়ে সে সময়ের আলবদর নেতা মুজাহিদকে ২০১৩ সালের ১৭ জুলাই ফাঁসিতে ঝূলিয়ে মৃত্যুদন্ড কার্যকরের আদেশ দেন ট্রাইব্যুনাল-২। favicon

Leave a Reply