চরফ্যাশনে বিদ্যালয়ের ছাদে ফল ও সবজি বাগান

চরফ্যাশনে বিদ্যালয়ের ছাদে ফল ও সবজি বাগান

  • নিউজ ডেস্ক

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার নজরুল নগর ইউনিয়নের ৬৫নং মাঝের চর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দুটি ভবনের ছাদে ফল, ফুল আর সবজির বাগান সৃজন করে অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ঐ বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা। ফুলে ফলে ভরে আছে তাদের সৃজিত বাগান। রোপণ করা প্রতিটি গাছে এখন শোভা পাচ্ছে মৌসুমী ফল। সরেজমিনে গিয়ে শুধু আম আর লিচু গাছ ছাড়া রোপণকৃত কাগজি লেবু, ছবেদা, মালটা, কমলা, জলপাই, আমড়া, কামরাঙ্গা, পেয়ারা, স্টোবেরি, আমলকি আর করমজা গাছে ফুল আর ফলের নজরকাড়া উপস্থিতি দেখা গেছে। সৃজিত বাগানে চার প্রজাতির গোলাপসহ রয়েছে, বকুল, হাছনাহেনা, গন্ধরাজ, বেলি, ক্যাকটাচ, কাঠালী, বারবীনা, ডেন্টাস, চন্দ্র মল্লিকা ও কৈলাশসহ ৩০ প্রজাতির ফুল গাছ। সবজি বাগানে ক্ষেত মরিচ, বোম্বাই মরিচ, বেগুন ও পেঁপে গাছ রয়েছে। এসব গাছে রয়েছে ফসলের সমারহ। এ ছাড়া বাগানে রয়েছে বিরল ১০ প্রজাতির ঔষধি গাছ।

শিক্ষকদের উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে অর্থ সহায়তা দেন নজরুল নগর ইউপি চেয়ারম্যান রুহুল আমিন হাওলাদার, চরকলমী ইউপি চেয়ারম্যান কাওছার আহমেদ, শিক্ষা অফিসার মো. আব্দুস সালাম, সহকারী শিক্ষা অফিসার খালিদ হোসেন ও ইউআরসি ইন্সট্রাক্টর মুমিন হোসেন এবং বিদ্যালয় এসএমসি সভাপতিসহ সদস্যবৃন্দ। নিজ অর্থ এবং স্থানীয়দের অনুদানে বাগান সৃজনে এ পর্যন্ত খরচ হয়েছে প্রায় ৬১ হাজার টাকা । তিনি তার উদ্যোগে সহায়তার জন্য সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

স্থানীয়রা জানান, শিক্ষকদের এই উদ্যোগ নিঃসন্দেহে বাংলাদেশের সকল স্কুলের ছাদে বাগান করার জন্য অনুকরণীয়। বাংলাদেশের প্রতিটি স্কুলের ছাদে এ রকম বাগান সৃজন বাধ্যতামূলক করার ব্যাপারে সরকারের প্রতি দাবি জানান তারা।

সহকারী শিক্ষা অফিসার মো. খালিদ হোসেন বলেন, স্যারসহ আমরা বিদ্যালয়ের বাগানটি পরিদর্শন করেছি। উদ্যোগটি প্রশংসনীয় এবং অনুকরণীয়। এ ব্যাপারে আমরা সকল শিক্ষকদেরকে উদ্বুদ্ধ করছি।

সূত্র: ইত্তেফাকfavicon59-4

Leave a Reply