ভারনের দশে দশ

ভারনের দশে দশ

  • নিলয় বিশ্বাস

রাফায়েল ভারন, সদ্য বিশ্বকাপ জয়ী ফ্রান্স দলের এবং রিয়াল মাদ্রিদের ডিফেন্ডার। ক্লাব পর্যায়ে জিতেছেন উয়েফা চাম্পিয়ন লীগ। তাও আবার টানা তিনবার! আর টানা তিন বার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লীগ জিতে করে ফেলেছেন একটি রেকর্ড। সবচেয়ে কম বয়সী ডিফেন্ডার হিসেবে জয় করছেন তিনটি উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগ, মাত্র ২৪ বছর বয়সে। এর আগে আরেক কিংবদন্তী ডিফেন্ডার পাওলো মালদানী ২৬ বছর বয়সে জিতেছেন তিনটি উয়েফা চ্যাম্পিয়ান্স লীগ। আর কদিন আগে তো রাশিয়া থেকে বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে ফিরেছেন এই ফরাসি ডিফেন্ডার। ফ্রান্সের বিশ্বকাপ মিশনের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত প্রত্যেকটি মিনিট খেলেছেন। কোচ দিদিয়ের দেশমের আস্থার  মূল্যায়ন করেছেন বেশ ভালভাবেই।

ভারনের ক্যারিয়ার শুরু হয়েছিল ফ্রেন্স ক্লাব লেন্সের হাত ধরে। ৭ নভেম্বর মন্টেপেলিয়ারের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই যাত্রা শুরু করছিলেন প্রফেশনাল ফুটবল ক্যারিয়ারের। ২০১০ মৌসুম শেষ করেই ডাক পান স্প্যানিস জায়ান্ট ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদে। মাদ্রিদের হয়ে ইতিমধ্যেই খেলে ফেলেছেন ২০০’র বেশি ম্যাচ আর সাথে সাক্ষী হয়েছেন পনেরটি ট্রফি জেতার। ক্লাব পর্যায়ে প্রথমে সুবিধা করতে পারেননি। বড় তারকার কারণে বসে থাকতেই হয়েছে সাইড বেঞ্চেই। রিয়াল মাদ্রিদ থেকে ডিফেন্ডার পেপে যাওয়ার পর হয়ে পড়েন মূল একাদশের খেলোয়াড়।

জাতীয় দলের হয়ে ডাক পান ২০১৩ সালে। জাতীয় দলে যোগ দেওয়ার আগেই নিজেকে প্রমাণ করে এসছেন ফ্রান্স অনুর্ধ ১৮, ২০ এবং ২১ যুব দলে। ২০১৪ বিশ্বকাপও খেলেছেন। সেবার ফিফা সেরা যুব ফুটবলারের তালিকায় মনোনয়ন পেয়েছিলেন। কিন্তু জেতা হয়নি সেবার,  খেতাব জিতেছেন তার আরেক স্বদেশী পল পগবা। এবার নজর দেওয়া যাক ভারনের ‘দশে দশ’ এর দিকে। ক্লাব পর্যায়ে জিতেছেন দুটি লীগ শিরোপা, চারটি উয়েফা চ্যাম্পিয়ন লীগ, দুটি ফিফা ওয়ার্ল্ড বিশ্বকাপ, দুটি উয়েফা বিশ্বকাপ! দশে দশ। ক্লাবের হয়ে দশে দশ করছেন এই তরুণ ডিফেন্ডার। জাতীয় দলের হয়ে তো এবার বিশ্বকাপ জয় করলেন, কপালটা একটু খারাপ! ২০১৬ সালের ইউরোতে না হারলে জাতীয় দলের হয়ে দুয়ে দুই করে নিতে পারতেন। কিন্তু সাবেক সর্তীথ ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর পর্তুগাল সমীকরনটি মেলাতে দেয়নি। কিন্তু ভারনের সামনে এখনো পড়ে আছে অনেক দূর যাওয়ার পথ। বয়স মাত্র ২৫। নিজের ঝুলিকে ভর্তি করে নেওয়ার আরো সুযোগ তো সামনে আসবে।

Leave a Reply