একদিনের ক্রিকেট থেকে বিদায় ‍নিলেন ইউনুস খান

একদিনের ক্রিকেট থেকে বিদায় ‍নিলেন ইউনুস খান

স্পোর্টস ডেস্ক: ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজটি খেলেই ওয়ানডে ক্রিকেটকে ‘বিদায়’ বলার সিদ্ধান্ত নিয়ে রেখেছিলেন ইউনুস খান। ওয়ানডে সিরিজের চারটি ওয়ানডের জন্যই তাঁকে নেওয়া হয়েছিল, কিন্তু তিনি কেন প্রথম ওয়ানডের আগেই নিজের অবসরের ঘোষণাটা দিয়ে দিলেন, এ নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) সভাপতি শাহরিয়ার খানও ইউনিসের এই সিদ্ধান্তে হতাশ।

তবে ইউনুস জানিয়েছেন, অবসরের সিদ্ধান্তটি যথেষ্ট ভেবেচিন্তেই নেওয়া। একটি টেলিভিশন চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, বিভিন্ন কারণে ২০১১ সাল থেকেই তিনি ওয়ানডে থেকে অবসরের কথা ভাবছেন। এই কারণগুলোর মধ্যে যেমন ক্রিকেটীয় ব্যাপার আছে, তেমনি আছে অক্রিকেটীয় অনুষঙ্গও।

ওয়ানডে থেকে সরে যাওয়ার পেছনে দলীয় কোন্দলও যথেষ্ট ভূমিকা রেখেছে বলে আভাস আছে ইউনিসের কথায়, ‘আমি একটি সিরিজে খুব ভালো খেলে মাথা উঁচু করে ওয়ানডে ক্রিকেট ছাড়তে চেয়েছিলাম। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত সেই সুযোগ আমার হচ্ছিল না। দলে আসা-যাওয়ার মধ্য দিয়েই আমার সময় কেটে যাচ্ছিল। পাকিস্তান দলের কেউ কেউ হয়তো আমার হাসিটা পছন্দ করেন না, কেউ কেউ আছেন, আমার টেকনিক নিয়েও যাদের মধ্যে প্রশ্ন আছে।’

ইউনিসের অবসরের ব্যাপারটি নাকি জানতেন না প্রধান নির্বাচক হারুন রশিদও। তিনিও বিস্ময় প্রকাশ করে বলেছেন, ‘শারজায় দলের সঙ্গে দেখা করেছি। কথা বলেছি। ইউনিসের সঙ্গেও কথা বলেছি। কই, সে সময় তো ইউনিস আমাকে এ ব্যাপারে কিছু বলেনি!’

এসবের পরেও ইউনিস তৃপ্ত দেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে, ‘এত কিছুর পরেও আমি দেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে দারুণ তৃপ্ত। দেশের হয়ে রান করেছি অনেক। কিন্তু আমি চাই না অবসরের পর সবাই আমাকে কেবল কয়েকটি সংখ্যা দিয়ে মনে রাখুক। আমি চাই সবাই আমাকে মনে রাখুক দল ও দেশের জন্য নিজেকে উজাড় করে দেওয়াদের একজন হিসেবে।’

ইউনিসের অবসরের ব্যাপারটি নাকি জানতেন না প্রধান নির্বাচক হারুন রশিদও। তিনিও বিস্ময় প্রকাশ করে বলেছেন, ‘শারজায় দলের সঙ্গে দেখা করেছি। কথা বলেছি। ইউনিসের সঙ্গেও কথা বলেছি। কই, সে সময় তো ইউনিস আমাকে এ ব্যাপারে কিছু বলেনি!’

পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক জাভেদ মিয়াঁদাদের মতে, ইউনিসের অবসর-সিদ্ধান্ত পাকিস্তান ক্রিকেটের বাজে দিকটাকেই পৃথিবীর সামনে তুলে নিয়ে এল। মহসিন খান তো ইউনিসের হঠাৎ অবসর ঘোষণার জন্য দায়ী করেছেন কোচ ওয়াকার ইউনিসকে, ‘আমার মনে হয় ওয়াকার ওকে দলে চায় না। গত ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এমন কিছু ঘটেছে যার কারণে ইউনিস এই সিদ্ধান্তটা নিয়ে নিয়েছে। ওর কাছে হয়তো কোনো বার্তা গিয়েছিল। আমার মনে হয় ইউনিসের মতো একজন সিনিয়র খেলোয়াড়কে আরও সতর্কতার সঙ্গে সামলানো উচিত ছিল।’ সংবাদ: পিটিআই।

Leave a Reply